এসএটি (SAT) পরীক্ষায় অংশ নেয়ার জন্য অনলাইনে রেজিস্ট্রেশন করতে হয়। অনলাইন রেজিস্ট্রেশনের জন্য নিজেকে কলেজবোর্ড (CollegeBoard) এর ওয়েবসাইট থেকে প্রথমেই একটি স্টুডেন্ট অ্যাকাউন্ট (Student Account) তৈরি করতে হয়।

কলেজবোর্ড (CollegeBoard) অ্যাকাউন্ট খোলার আগে পাসপোর্ট এবং সব ধরণের ডকুমেন্টেস (ট্রান্সক্রিপ্ট) এ তোমার নামের ফরমেট ঠিক আছে কিনা দেখে নেওয়া জরুরী। যদি নামের বানানে কোন ধরনের সমস্যা থাকে তবে সংশোধন করিয়ে নিতে হবে।

১.

শুরুতেই CollegeBoard ওয়েবসাইটে যেতে হবে। ওয়েবসাইটে Sign UP বাটনে ক্লিক করে I am a Student নির্বাচন করতে হবে।

প্রথমেই General Student Information সেকশনে তোমাকে নাম, লিঙ্গ, জন্ম তারিখ, ই- মেইল অ্যাড্রেস এবং হাই স্কুল গ্র্যাজুয়শনের সময় সংক্রান্ত তথ্যগুলো দিতে হবে। প্রথমেই First or Given Name ঘর থাকবে। তার ঠিক নিচেই Middle Initial এবং Last Name or surname লেখার ঘর দেখবে। এই তিনটি ঘর মিলিয়ে তোমার সম্পূর্ণ নাম লিখতে হবে।

যদি তোমার নাম ৩টি শব্দে হয়, যেমন Tamanna Sharmin Kabir; তাহলে First or Given Name এর ঘরে হবে নামের প্রথম দুইটি অংশ অর্থাৎ Tamanna Sharmin. অন্যদিকে Last Name or Surname শেষ অংশে Kabir লিখতে হবে। Middle Initial নামের বক্সটি ফাঁকা রাখতে হবে (ব্যবহার করা যাবে না)।

এই প্রথম ধাপটি হবে সম্পূর্ণ পাসপোর্টে দেওয়া তথ্যের অনুরূপ।

২.

এই ধাপের শুরুতেই নিজের ইমেইল অ্যাড্রেস দিতে হবে। হাই স্কুল গ্রাজুয়শেন ঘরে তোমাকে A Level (Advanced Level)/ উচ্চ মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট (এইচএসসি) পরীক্ষা সম্পর্কিত তথ্য প্রদান করতে হবে। তোমাকে A Level (Advanced Level)/ উচ্চ মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট (এইচএসসি) পরীক্ষা পাশের মাস এবং সাল দিতে হবে।

 

লক্ষ্যনীয়: ইমেইল অ্যাড্রেস দেখতে যেন অফিসিয়াল মনে হয়। অর্থাৎ, ইমেইল অ্যাড্রেস’টিতে যেন তোমার নাম যুক্ত থাকে এবং ফেইক মনে না হয়। ইমেইল অ্যাড্রেস দেখে ফেইক মনে হলে অনেক সময় স্প্যাম হিসেবে গণ্য হতে পারে।

ZIP/Postal code প্রদানের জন্য একটি ঘরে তুমি পাবে, যা কেবল U.S. এর স্টুডেন্টদের জন্য প্রযোজ্য। তাই, কেবল Outside the U.S. অপশন সিলেক্ট করে দিলেই হবে।

৩.

এমন Username এবং Password ব্যবহার করা উচিত যা তুমি সহজেই মনে রাখতে পারবে। Password ভুলে গেলে তা রিকভার করার জন্য সহজেই মনে রাখা যায় এমন security question ব্যবহার উত্তম।

অনেকেই Username এবং Password ভুলে যায়া। তাই, অ্যাকাউন্ট করার পর পরই Username এবং Password ব্যক্তিগত ডায়রিতে লিখে রাখাতে পারো। এছাড়াও security question এবং তার Answer’ও লিখে রাখা উচিত।

৪.

এই সেকশেনে তোমার পিতা বা মাতার নাম এবং ইমেইল উল্লেখ করতে হয়। এই অংশ ব্যবহার করলে কলেজবোর্ড থেকে যে সব তথ্য তোমাকে প্ররণ করা হবে তা CC রুপে তোমার পিতা বা মাতার কাছে ইমেইলের মাধ্যমে পৌছে যাবে। তবে এই সেকশনটি স্কিপও করা যায়।

৫.

এটি কলেজবোর্ড অ্যাকাউন্ট তৈরির শেষ ধাপ। এই সেকশনে তোমার নাম ও জন্ম তারিখ ইত্যাদি তথ্য চেক করতে বলা হবে। তথ্যগুলোয় সংশোধন প্রয়োজন হলে Edit অপশনে ক্লিক করতে হবে। আর, তথ্যে কোন ভুল না থাকলে হলে Confirm বাটন ক্লিক করলেই তৈরি হয়ে যাবে তোমার তোমার কলেজবোর্ড অ্যাকাউন্ট।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *